• ১৮ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ৩রা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ , ১২ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি

কানাইঘাট স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সামনে দু’পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা

Daily Jugabheri
প্রকাশিত নভেম্বর ২৭, ২০২০
কানাইঘাট স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সামনে দু’পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা

কানাইঘাট প্রতিনিধি :::
গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেল আড়াইটার দিকে কানাইঘাট উপেজলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মূল ফটকের সামনে দু’পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়লে থানা পুলিশ পরিস্থিতি শান্ত করে। স্থানীয়রা জানান স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্মরত আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডাঃ আবুল হারিছের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ এনে তার অপরসারনের দাবীকে সম্প্রতি হাসপাতালের আশপাশ এলাকার বেশ কয়েকজনের স্বাক্ষর সম্বলিত ৩টি অভিযোগ স্বাস্থ্য বিভাগের সিলেটের পরিচালক ও জেলা সিভিল সার্জন সহ বিভিন্ন দফতরে দায়ের করা হয়। গতকাল বিকেল ২টা দিকে স্বাস্থ্য বিভাগ সিলেট এর পরিচালক ডাঃ সুলতানা রাজিয়া হাসপাতাল পরিদর্শনে আসেন। এ সময় হাসপাতালের মূল ফটকের সামনে ডাঃ আবুল হারিছের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত অভিযোগকারীদের মধ্যে জসিম উদ্দিন সহ কয়েকজন তাদের দরখাস্তের তদন্তের ব্যাপারে ডাঃ সুলতানা রাজিয়ার সাথে কথা বলার সময় ডাঃ আবুল হারিছের চাচা শফিকুল হক সহ পরিবারের লোকজন ও তার স্বজনরা জসিম উদ্দিনের পক্ষের লোকজনের সাথে তর্কবিতর্কে জড়িয়ে পড়লে সেখানে দু’পক্ষের মধ্যে ধস্তাধস্তি সহ চরম উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। পূর্ব থেকে হাসপাতালের সামনে অবস্থান রত থানার এসআই স্বপন চন্দ্র সরকারের নেতৃত্বে এক দল পুলিশ উভয় পক্ষকে হাসপাতালের সামনে থেকে তাড়িয়ে দিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করেন। এ সময় স্বাস্থ্য বিভাগের সিলেটের পরিচালক ডাঃ সুলতানা রাজিয়া তার গাড়ীতে উঠে চলে যান। এ ব্যাপারে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে টিএইচও ডাঃ অভিজিৎ শর্মার সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন কোন অভিযোগের তদন্তে ডাঃ সুলতানা রাজিয়া মেডাম আসেননি। তিনি হাসপাতাল পরিদর্শন শেষে লোভছড়া চা বাগানের যাবার সময় হাসপাতালের মূল ফটকের সামনে স্থানীয় কয়েকজন তার সাথে কথা বলার চেষ্টা করলে এনিয়ে দু’টি পক্ষের মধ্যে সেখানে কিছুটা উত্তেজনা দেখা দিলে পুলিশ পরিস্থিতি নিন্ত্রনে আনেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন