• ২৪শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ১০ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ , ১৮ই জিলহজ, ১৪৪৫ হিজরি

বিশ্বনাথে সুরমা নদী ভাঙ্গন রক্ষায় সরকারের আয়ের চেয়ে ব্যয় বেশী

Daily Jugabheri
প্রকাশিত নভেম্বর ২৮, ২০২০
বিশ্বনাথে সুরমা নদী ভাঙ্গন রক্ষায় সরকারের আয়ের চেয়ে ব্যয় বেশী

বিশ্বনাথ (সিলেট) প্রতিনিধি:
সিলেটের বিশ্বনাথে সুরমা নদীর ভাঙ্গন রক্ষায় ব্লক বসানো দুটি প্রকল্পে ৩৩ কোটি ৩১ লাখ টাকার কাজের উদ্বোধন করা হয়েছে। শনিবার উপজেলার লামাকাজী ইউনিয়নের পরগনা বাজার এলাকায় ওই কাজের উদ্বোধন করা হয়। উদ্বোধনী সভায় বক্তারা বলেন- সুরমা নদীর বালু মহাল ইজারা দিয়ে সরকার রাজস্ব পেয়েছে মাত্র ৭৫লাখ টাকার মতো। আর বালু উত্তোলনের ফলে সুরমা নদীর ভাঙ্গনে বিলিন হয়েছে জনসাধারণের রাস্তাঘাট, মসজিদ ও ফসলি জমিসহ অনেক গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা। ইজারা দিয়ে মাত্র ৭৫লাখ টাকা রাজস্ব পেয়ে সেই ভাঙ্গন রক্ষায় সরকারের বরাদ্দ হয়েছে দুটি প্রকল্পে ৩৩কোটি ৩১লাখ টাকা। এদুটি প্রকল্প হচ্ছে পরগনা বাজার ও মাহতাবপুর নামে। আগামিতে জনসাধারণের বসত বাড়ি, ফসলি জমি রক্ষা আর সরকারে আয়ের চেয় ব্যয় কমানোর স্বার্থে লামাকাজী এলাকায় সুরমা নদীতে বালু মহাল ইজারা না দিতে সরকারের প্রতি দাবি জানান বক্তারা।
লামাকাজী ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান এনামুল হক এনাম মেম্বারের সভাপতিত্বে ও ফয়সল আহমদ মেম্বারের পরিচালনায় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন, সিলেট-২ আসনের এমপি ও গণফোরাম নেতা মোকাব্বির খান। তিনি বলেন- জনস্বার্থে আর যাহাতে সুরমা নদীতে বালু মহাল ইজারা না দেয়া হয় সে বিষয়ে তিনি জেলা প্রশাসকের সাথে কথা বলবেন। তিনি সভায় উপস্থিত থাকা সিলেটের পাউবো’র সাব-ডিভিশনাল ইঞ্জিনিয়ার একেএম নিলয় পাশাকে কাজটি সঠিকভাবে করার জন্য নির্দেশনা দেন।
এসময় আরও বক্তব্য রাখেন, থানার ওসি শামীম মূসা, তিনি দুঃখ প্রকাশ করে বলেন- গতবছর সুরমা নদীর ওই এলাকায় বালু মহাল ইজারা না দেয়ার জন্য জেলা প্রশাসক বরাবর লিখিত আবেদন করেন। কিন্তু দুঃখজন হলেও সত্য যে তার এই আবেদনটি জেলা প্রশাসকের কাছে পৌছায়নি। বালু মহাল ইজারা না দিলে আজ নদী ভাঙ্গনরোধে সরকারের কোটি কোটি টাকা নষ্ট হতোনা। ক্ষতি হতনা এলাকার জনসাধারণের ফসলি জমিসহ গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা। আগামিতে এই এলাকায় বালু মহাল ইজারা না দেয়ার জন্য অনুরোধ করেন। পাশাপাশি ভাঙ্গরোধ প্রকল্পের কাজের সিডিউলটি সাইটে টানিয়ে রাখার জন্য সিলেটের পাউবো’র সাব-ডিভিশনাল ইঞ্জিনিয়ারকে অনুরোধ করেন।
এসময় সভায় আরও বক্তব্য রাখেন- ওসি তদন্ত রমা প্রসাদ চক্রবর্তী, গণফোরাম নেতা শহিদ আহমদ, সাংবাদিক জাহঙ্গীর আলম খায়ের, প্রনঞ্জয় বৈদ্য অপু ও আ’লীগ নেতা আব্দুল রব।

সংবাদটি শেয়ার করুন