• ২৬শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ , ১৮ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি

কমলগঞ্জে হত্যাকারীদের গ্রেফতারের দাবিতে সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন

Daily Jugabheri
প্রকাশিত মার্চ ১৩, ২০২১
কমলগঞ্জে হত্যাকারীদের গ্রেফতারের দাবিতে সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন

কমলগঞ্জ প্রতিনিধি :::
মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে শমশেরনগর সিএনজি ফিলিং স্টেশন এলাকায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সিএনজি-অটো চালক জলিল মিয়া (২৬) কে ছুুরিকাঘাতে হত্যাকারীদের গ্রেফতারের দাবিতে বিক্ষোভ ও মানববন্ধন করছেন পরিবহন শ্রমিকরা। শনিবার (১৩ মার্চ) সকাল ৯টায় শমশেরনগর-কমলগঞ্জ শ্রমিক সমম্বয় কমিটির আয়োজনে শমশেরনগর চৌমুহনায় তিন ঘন্টা রাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভ সমাবেশ ও মানববন্ধন কনে। এসময় রাস্তার চতুর্দিকে শতাধিক যানবাহন আটকা পড়ায় চরম ভোগান্তিতে পড়েন যাত্রীসাধারণ।

শমশেরনগর চৌমুহনা সিএনজি-অটোরিক্সা চালক সমিতির সভাপতি মো. আব্দুল গণির সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক সারফিন আহমদের পরিচালনায় বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, সিএনজি-অটোরিক্সা চালক সমিতি মৌলভীবাজার জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক সেলিম আহমদ, আলীনগর ইউপি চেয়ারম্যান ফজলুল হক বাদশা, শমশেরনগর বণিক কল্যাণ সমিতির সাবেক সভাপতি আব্দুল মালিক বাবুল, সাংবাদিক শাহীন আহমদ, সিএনজি-অটো চালক সমিতি উপজেলা শাখার সভাপতি মো. আলমাছ মিয়া, পরিবহন শ্রমিক নেতা নূরুল ইসলাম, শেখ রাজু আহমদ, জসিম উদ্দীন প্রমুখ।

বিক্ষোভ বক্তারা বলেন, সিএনজি-অটো চালক মুক্তিযোদ্ধা সন্তান জলিল মিয়া (২৬) কে প্রকাশ্যে ছুরিকাঘাত করে হত্যা করা হয়। এ ঘটনায় নিহতের পক্ষ থেকে থানায় মামলা দায়ের করা হলেও ঘটনার ৯দিনে পুলিশ মূল আসামীদের গ্রেফতার করতে পারেনি। আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে অভিযুক্ত আসামীদের গ্রেফতার করা না হলে কঠোর আন্দোলনের কর্মসূচী ঘোষণা করা হবে বলে হুশিয়ারি দেন।

উল্লেখ্য, গত ৪ মার্চ বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১০ টায় শমশেরনগর সিএনজি ফিলিং স্টেশনে গাড়িতে গ্যাস ভর্তি নিয়ে কথা কাটাকাটি ও উত্তেজনার সময় ছুরিকাঘাতে সিএনজি-অটো চালক জলিল মিয়া প্রতিপক্ষের ছুরিকাঘাতে নিহত হন। এ ঘটনায় নিহত চালকের বড় ভাই খলিল মিয়া বাদি হয়ে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে।

কমলগঞ্জ থানার ওসি ইয়ারদৌস হাসান বলেন, এ মামলায় পুলিশ ইতিপূর্বে এজাহারভূক্ত একজন আসামীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। বাকী আসামীদের গ্রেফতারে পুলিশী জোর তৎপরতা চলছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন