• ১৫ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ১লা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ , ৯ই জিলহজ, ১৪৪৫ হিজরি

আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন চান বিএনপির সাবেক সভাপতির ছেলে!

Daily Jugabheri
প্রকাশিত জানুয়ারি ৬, ২০২২
আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন চান বিএনপির সাবেক সভাপতির ছেলে!

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি :::
সুনামগঞ্জের তাহিরপুরের বালিজুরি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে বিএনপির সাবেক গ্রাম সরকার ও ওয়ার্ড বিএনপির সাবেক সভাপতির ছেলে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন ফরম ক্রয় করেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন ফরম ক্রয়কারীর নাম আজাদ হোসেন। তিনি উপজেলার বালিজুরি ইউনিয়নের মাহতাবপুর গ্রামের সাবেক গ্রাম সরকার ও বিএনপির ওয়ার্ড কমিটির সাবেক সভাপতি হান্নান সরকারের ছেলে।
আজাদ হোসেনের বিরুদ্ধে এসব অভিযোগ করেছেন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আতাউর রহমান ও সাধারণ সম্পাদক তুষা মিয়া তালুকদার। বুধবার বিকেলে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটি সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকে কাছে আজাদ হোসেনের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ করেছেন তারা।
তবে অভিযোগ মিথ্যা দাবি করে আজাদ হোসেন বলেন,‘আমার বাবা সাবেক গ্রাম সরকার ছিলেন এটা সত্যি। তবে আমি ছাত্রলীগ, যুবলীগ করেছি, আমি উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য। এখন আমি কেন্দ্রীয় স্থলবন্দর লীগের সাধারণ সম্পাদক। ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আতাউর রহমানের নানা দুর্নীতির কথা বলায় আমার বিরুদ্ধে এসব মিথ্যা অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।’
আজাদ হোসেনের বিরুদ্ধে কেন্দ্রে দাখিল করা অভিযোগে উল্লেখ করা হয়েছে, বালিজুরি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন মাহতাবপুর গ্রামের আজাদ হোসেন। কিন্তু তার বাবা হান্নান সরকার বিএনপির সাবেক গ্রাম সরকার ছিলেন। আজাদ হোসেন আওয়ামী লীগে অনুপ্রবেশকারী ও হাইব্রিড। তাকে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রদান করলে দলের ক্ষতি হবে। এছাড়াও চাঁদাবাজীর মামলায় ২০০৯ সালে পুলিশ আজাদ হোসেনকে গ্রেফতার করেছিল এবং ওই সময়ে জেল খেটেছিল। তাই আজাদ হোসেনের মনোনয়ন ফরম দ্রুত বাতিলের দাবি জানানো হয়েছে।
বালিজুরি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আতাউর রহমান বলেন,‘আজাদ হোসেনের বাবা হান্নান সরকার শুধু বিএনপির সাবেক গ্রাম সরকারই ছিল না, ২ নং ওয়ার্ড বিএনপির সভাপতিও ছিল। তাদের পরিবার বিএনপির পরিবার। তার ছেলে এখন আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন চায়।’
এ ব্যাপারে তাহিরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হোসেন খান বলেন,‘আজাদ হোসেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য নয়। আগেও কোন সদস্য ছিল না। তার বাবা সাবেক গ্রাম সরকার ছিল কি না আমার জানা নেই। ’
প্রসঙ্গত, আগামী ৭ ফেব্রুয়ারি সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার ৭ টি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন।

সংবাদটি শেয়ার করুন