• ১লা মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ১৭ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ , ২০শে শাবান, ১৪৪৫ হিজরি

সুনামগঞ্জ চেম্বার অব কমার্সের ৩০তম বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত

Daily Jugabheri
প্রকাশিত ফেব্রুয়ারি ২৭, ২০২৩
সুনামগঞ্জ চেম্বার অব কমার্সের ৩০তম বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত

 যুগভেরী ডেস্ক ::: সুনামগঞ্জ চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির ৩০তম বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রোববার (২৬ ফেব্রুয়ারি) সকালে শহীদ আবুল হোসেন মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত ২০২১-২০২২ অর্থবছরের বার্ষিক সাধার‍ণ সভায় সভাপতিত্ব করেন চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি ও সুনামগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান খায়রুল হুদা চপল।

চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির আইটি অফিসার মমতাজ আক্তারের সঞ্চালনায় সাধারণ সভায় বক্তব্য দেন তাহিরপুর কয়লা আমদানিকারক গ্রুপের সভাপতি হাজী মো. আকলাছ উদ্দিন খন্দকার, সুনামগঞ্জ চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির সহসভাপতি খন্দকার মঞ্জুর আহমদ, পরিচালক অমল কর, সেলিম আহমেদ চৌধুরী, এনামুল হক, সাবেক সিনিয়র সহ সভাপতি আমিনুল হক, সুনামগঞ্জ রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি লতিফুর রহমান রাজু, ব্যবসায়ী বাবুল সিদ্দিকি প্রমুখ।

সাধারণ সভায় উপস্থিত ছিলেন সুনামগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সুনামগঞ্জ জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নুরুল হুদা মুকুট ও সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা সালমা পারভীন।

সভায় সভাপতির বক্তব্যে চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি খায়রুল হুদা চপল বলেন, সুনামগঞ্জ চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির লক্ষ্য উদ্দেশ্য হচ্ছে ব্যবসা-বাণিজ্য ও শিল্পের উন্নতি, অগ্রগতি ও এটির নিরাপত্তা বিধান, সুযোগ সুবিধা সৃষ্টি করা এবং সরকারের রাজস্ব আদায়ে সার্বিক সহযোগিতা করে দেশের উন্নয়ন ও অগ্রগতির প্রসার ঘটানো। আপনারা জানেন যে, সৎ নেতৃত্বই পারে যে কোন সংগঠনের উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে। সৎ নেতৃত্ব থাকলে অবশ্যই কাঙ্খিত সাফল্যে পৌঁছানো সম্ভব, এরই ধারাবাহিকতায় আমরা সততার সাথে সুনামগঞ্জ চেম্বার পরিচালনার চেষ্টা করে আসছি। আমরা বাংলাদেশ সরকারের রাজস্ব তহবিলে বিপুল পরিমাণ রাজস্ব যোগান দিচ্ছি যা রাষ্ট্রীয়ভাবে স্বীকৃত।

তিনি বলেন, প্রতি বছর পবিত্র রমজান মাস উপলক্ষে নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্য স্থিতিশীল রাখার লক্ষ্যে সুনামগঞ্জ চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি শহরের সকল শ্রেণির ব্যবসায়ীদের নিয়ে মতবিনিময় সভা করে নিয়মিত বাজার মনিটরিংয়ের ব্যবস্থা করে আসছে। আসন্ন রমজান মাস উপলক্ষে প্রতি বছরেই ন্যায় এবারও পণ্য সামগ্রীর ঘাটতি সৃষ্টি না করা, খাদ্যদ্রব্যে ভেজাল ও রং না মেশানো, ভোজ্য তৈল, ডাল, পিয়াজ, খেজুরসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যসমূল্য স্থিতিশীল রাখা এবং গ্রাহকদের সাথে ভাল ব্যবহার করার জন্য সর্বস্থরের ব্যবসায়ী মহলকে আহব্বান জানাচ্ছি।

তিনি আরও বলেন, আপনারা নিশ্চয়ই অবগত আছেন যে, এ বছর পরপর তিনবার বন্যা হয়েছে। অতিবৃষ্টি ও ভারতীয় পাহাড়ি ঢলে জেলায় অনাকাঙ্খিত ভাবে আকস্মিক ভয়াবহ বন্যা পরিস্থিতি সৃষ্টি হওয়ায় নিম্নাঞ্চল ও শহর-বন্দরসহ সমগ্র জেলা প্লাবিত হওয়ায় সকল মানুষের পরিস্থিতি- মারাত্মক আকার ধারণ করে। এতে বাসস্থানসহ বিশুদ্ধ খাবার পানি ও খাদ্য দ্রব্যের সংকট দেখা দেয়ায় সাধারণ মানুষজন সম্পূর্ণরূপে অসহায় হয়ে পড়ে। আকস্মিক এই ভয়াবহ বন্যা পরিস্থিতি মোকাবেলায় সুনামগঞ্জ চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইভারি ক্ষতিগ্রস্ত বানভাসি মানুষের পাশে দাঁড়ানো এবং বিভিন্ন আশ্রয়কেন্দ্রে আগত অসহায় বানভাসি মানুষের জন্য শুকনো খাবার, রান্না করা খাবার, বিশুদ্ধ পানি এবং নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি সরবরাহসহ সার্বিক সাহায্য-সহযোগিতা করার চেষ্টা করেছি।

সংবাদটি শেয়ার করুন