• ২৫শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ১২ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ , ১৫ই শাবান, ১৪৪৫ হিজরি

দক্ষিণ সুরমায় আমার আদি নিবাস : বাবুল

Daily Jugabheri
প্রকাশিত নভেম্বর ৩০, ২০২৩
দক্ষিণ সুরমায় আমার আদি নিবাস : বাবুল

যুগভেরী ডেস্ক ::: দলের মনোনয়ন পেলেও সিলেট-১ আসনে নির্বাচন না করার কথা জানিয়েছেন জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় নির্বাহী সদস্য ও মহানগর জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক নজরুল ইসলাম বাবুল।

তিনি সিলেট-৩ আসন থেকে দলীয় মনোনয়ন চেয়েছিলেন। তবে ৩ এর পরিবর্তে ১-এ মনোনয়ন পেয়ে কিছুটা নাখোশ বাবুল। দলের এ সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনারও অনুরোধ জানিয়েছেন তিনি।

এর আগে বাবুল সিলেট সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে জাতীয় পার্টির প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন।

তিনি দক্ষিণ সুরমা, ফেঞ্চুগঞ্জ ও বালাগঞ্জ নিয়ে গঠিত সিলেট-৩ আসন থেকে জাতীয় পার্টির হয়ে প্রার্থী হতে চেয়েছিলেন। কিন্তু সোমবার বিকেলে দলীয় মহাসচিব জানালেন তার দল তাকে সিলেট-১ আসনে লড়তে টিকিট দিয়েছে।

সংবাদ সম্মেলন করে নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দেবেন জানিয়ে বাবুল বলেন, আমি এই সিলেটেরই সন্তান। দক্ষিণ সুরমায় আমার আদি নিবাস।
দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষনা করার পর জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কমিটির নেতৃবৃন্দ ২৮৯টি আসনে নির্বাচনে প্রার্থী দিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতার ঘোষণা দেন। এর প্রেক্ষিতে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ এবং সিলেট-৩ আসনের অন্তর্গত তিনটি উপজেলার জাতীয় পার্টির সর্বস্তরের নেতাকর্মীবৃন্দ এবং দলমত নির্বিশেষ সাধারণ মানুষ আমাকে সিলেট-৩ আসন থেকে জাতীয় পার্টির লাঙ্গল প্রতীকে নির্বাচনের অনুরোধ জানান। তাদের জোরালো অনুরোধে আমি শুধুই সিলেট-৩ আসনে লাঙ্গল প্রতীকে নির্বাচনে অংশ নিতে প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছি।

তিনি বলেন, এর আগে আমিও ব্যক্তিগতভাবে মেয়র নির্বাচনের আগে বিগত সংসদ নির্বাচনেও সিলেট-৩ আসনে নির্বাচনে অংশ নেওয়ার লক্ষ্যে কাজ করেছি। মানুষের দ্বারে দ্বারে গিয়েছি। প্রচার-প্রচারণা চালিয়েছি। কিন্তু পরে আমাকে মেয়র পদে অংশ নিতে বলা হল। দলের নির্দেশ মেনে মেয়র পদে লড়েছি।

শুধু রাজনীতি নয় ব্যবসায়িক কারণ এবং বাপ-দাদার আদি নিবাস সিলেট-৩ আসন উল্লেখ করে বাবুল বলেন, দক্ষিণ সুরমা, ফেঞ্চুগঞ্জ ও বালাগঞ্জ এই তিন উপজেলার মানুষ আমাকে ভালোবাসেন। তারা চান আমি যেনো তাদের জন্য কাজ করি। উপজেলাগুলোতে জাতীয় পার্টি ও অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরাও চান আমি যেনো সিলেট-৩ আসনেই লাঙ্গল প্রতীকে প্রার্থী হই। তাদের এমন জোরালো দাবি ও অনুরোধে আমি শুধুমাত্র সিলেট-৩ আসনেরই মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করে সেটি জমা দিয়েছিলাম কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের কাছে। কিন্তু রহস্যজনক কারণে সোমবার বিকেলে জানানো হলো আমি সিলেট মহানগর ও দক্ষিণ সুরমার একাংশ নিয়ে গঠিত সিলেট-১ আসনের প্রার্থী। বিষয়টি আমাকে অনেক ব্যথিত করেছে। আমি মনেকরি জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় নেতাদেরকে কোনোও একটি মহল ভুল বুঝিয়েছে।

বাবুল জানান, অজ্ঞাত কারণে সিলেট-৩ আসনের পরিবর্তে সিলেট -১ আসনে মনোনয়ন প্রদান করা হয়েছে। এমন সিদ্ধান্ত জানতে পেরে আমি সেদিনই দলের চেয়ারম্যান জি. এম কাদের ও মহাসচিব মজিবুল হক চুন্নুর সাথে যোগাযোগ করি। কিন্তু তাদের কাছ থেকে কোনো সন্তোষজনক উত্তর পাইনি। আমি মনেকরি আমার নির্বাচনী এলাকা সিলেট-৩’র পরিবর্তে সিলেট-১-এ মনোনয়ন দেয়ার বিষয়টি চেয়ারম্যান ও মহাসচিবের রাজনৈতিক ভুল সিদ্ধান্ত। তারা এখানকার অবস্থা সম্পর্কে অবগত না হয়েই এমন সিদ্ধান্ত দিয়েছেন। যা দলের ভবিষ্যত এবং আমার রাজনৈতিক ভবিষ্যতের জন্য চরমভাবে ক্ষতির কারণ।

নজরুল ইসলাম বাবুল বলেন, আমি বিগতদিনে সিটি নির্বাচনে লড়েছি। দলকে খাদের কিনারা থেকে টেনে তুলে সিলেটের জেলার প্রতিটি উপজেলাতে জাতীয় পার্টির হারানো জনপ্রিয়তা ফিরিয়ে আনতে কাজ করেছি। মাঠের রাজনীতি সম্পর্কে আমি অবগত রয়েছি। কোন আসনে আমি যোগ্য সেটি আমি ভালোভাবেই জেনে-বুঝেই মনোনয়ন চেয়েছি। এখন অন্য আসনে আমাকে মনোনয়ন দেয়া মানে আমার ক্যারিয়ার ধ্বংস করা।

প্রসঙ্গত, সোমবার বিকেলে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান কার্যালয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রার্থীদের নাম ঘোষণা করেন দলটির মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নু। এ সময় মুজিবুল হক চুন্নু সিলেটের প্রার্থীদের নামও ঘোষণা করেন। সিলেটের প্রার্থীরা হলেন, প্রার্থীরা হলেন সিলেট-১ আসেন নজরুল ইসলাম বাবুল, সিলেট-২ আসনে মকসুদ ইবনে আজিজ লামা, সিলেট-৩ আসনে আতিকুর রহমান আতিক, সিলেট-৪ আসনে এটি এম তাজ রহমান, সিলেট-৫ আসনে সাব্বির আহমদ ও সিলেট-৬ আসনে মোহাম্মদ সেলিম উদ্দিন। তবে মঙ্গলবার সিলেট-২ আসনে প্রার্থী বদল করা হয়েছে। লামা অসুস্থ থাকায় সেখানে নতুন করে মনোনয়ন পেয়েছেন সাবেক সংসদ সদস্য ইয়াহইয়া চৌধুরী।

এছাড়া সিলেট জেলার অন্যান্য জেলার মধ্যে মৌলভীবাজারে জাপার মনোনয়ন প্রাপ্তরা হচ্ছেন মৌলভীবাজার-১ আসনে আহম্মদ রিয়াজ উদ্দিন, মৌলভীবাজার-২ আব্দুল মালিক, মৌলভীবাজার-৩ রুহুল আমিন। হবিগঞ্জে জাপার মনোনয়ন প্রাপ্তরা হলেন হবিগঞ্জ-১ এম.এ. মুনিম চৌধুরী বাবু, হবিগঞ্জ-৩ আব্দুল মুমিন চৌধুরী, হবিগঞ্জ-৪ আহাদ উদ্দিন চৌধুরী শাহীন। সুনামগঞ্জ-১ আসনে মো. আব্দুল মান্নান তালুকদার, সুনামগঞ্জ-৪ আসনে পীর ফজলুর রহমান মিসবাহ, সুনামগঞ্জ-৫ আসনে নাজমুল হুদা হিমেল মনোনয়ন পেয়েছেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন